মেয়েদের এই প্যান্ট গুলো দেখলে আপনি হতবাক হয়ে যাবেন

মেয়েরা যে প্যান্ট পরে এটা অস্বাভাবিকের কিছু না কিন্তু এরা যখন অস্বাভাবিক প্যান্ট পরে রাস্তায় আমরা তা দেখে হতবাক হয়ে যায়। আজ আপনাদের মাঝে এমনিই কিছু ছবি Continue reading “মেয়েদের এই প্যান্ট গুলো দেখলে আপনি হতবাক হয়ে যাবেন”

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ভাইরাল হওয়া মেয়েদের ১০ টি ছবি

পৃথিবী খুব দ্রুত পরিবর্তন হচ্ছে । সেই সাথে এগিয়ে যাচ্ছে প্রযুক্তি। আবিষ্কিত হচ্ছে নতুন নতুন কিছু। প্রযুক্তির উন্নয়নের ফলে মানুষ ঘরে বসেই পেয়ে যাচ্ছে যে কোনো ধরণের নতুন Continue reading “সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ভাইরাল হওয়া মেয়েদের ১০ টি ছবি”

সুন্দরী মেয়েদের কান্নার শব্দ আসে আবাসিক হোটেল থেকে(ভিডিও)

ভিডিওটি একদম নিচে ,বলছি হোটেল তকদিরের কথা। আবাসিক হোটেল তকদিরে কত রমণীর তকদির ভেঙেছে সেই পরিসংখ্যান জানা নেই কারও। তবে ওই আবাসিক হোটেল Continue reading “সুন্দরী মেয়েদের কান্নার শব্দ আসে আবাসিক হোটেল থেকে(ভিডিও)”

মেয়েদের চাকরি করা কি হালাল না হারাম? এ সম্পর্কে ইসলাম কি বলে? জেনে নিন ভিডিওসহ।

পিসটিভির প্রশ্নোত্তর পর্বে এক ব্যাক্তি মেয়েদের চাকরি সম্পর্কে  ডা. জাকির নায়েককে প্রশ্ন করলো। তাকে প্রশ্ন করা হলো, ইসলামে নারীরা স্বাবলম্বী হওয়ার চেষ্টা করলে এর বৈধতা Continue reading “মেয়েদের চাকরি করা কি হালাল না হারাম? এ সম্পর্কে ইসলাম কি বলে? জেনে নিন ভিডিওসহ।”

মেয়েদের এই ফানি ভিডিও ঝড় তুলেদিয়েছে সারা দেশে (ভিডিও)

ভিওটি একদম নিচে , তার আগে কিছু কথা , বিনোদন মানুষকে দু:খের বেড়াজাল থেকে অনেক দূরে নিয়ে যায় , বিনোদন মানুষের জীবনে এক অবিচ্ছেদ্য অংশ , মন খুলে হাসতে চাইলে মানুষকে বিনোদনের সাথে থাকতে হবে. Continue reading “মেয়েদের এই ফানি ভিডিও ঝড় তুলেদিয়েছে সারা দেশে (ভিডিও)”

মেয়েদের খেলা (ভিডিও)

ভিডিওটি একদম নিচে ,, বউচি বাংলাদেশের একটি গ্রামীণ ও ঐতিহ্যবাহী খেলা।[১] বউচি খেলায় দুইটি দলের প্রয়োজন হয়। প্রত্যেক দলে ৮ থেকে ১০ জন করে খেলোয়াড় হলে খেলা জমে। মাঠ অথবা বাড়ির উঠোন Continue reading “মেয়েদের খেলা (ভিডিও)”

সুন্দরী মেয়েদের বলির হাত থেকে যেভাবে রক্ষা করেছিল হযরত ওমর (রা:)

নীল নদ’ হল পৃথিবীর দীর্ঘতম নদ। দৈর্ঘ প্রায় ৬৬৬৯ কিলোমিটার। এটি পৃতিবীর একমাত্র নদ, যা দক্ষিণ দিক থেকে উত্তর দিকে প্রবাহিত।মিসরের নীল নদ সে দেশের কৃষিকার্যের প্রধানতম উৎস, কিন্তু উক্ত নদ প্রতি বছর Continue reading “সুন্দরী মেয়েদের বলির হাত থেকে যেভাবে রক্ষা করেছিল হযরত ওমর (রা:)”

গল্পটা শুধু মেয়েদের জন্য

ছেলেটিঃ হ্যালো! মেয়েটিঃ এই তুমি এতো কিপটে কেনো?  কতগুলা মিসকল দিলাম ব্যাক করলে না কেনো বলতো? ছেলেটিঃ মোবাইলে ব্যালেন্স নেই! মেয়েটিঃ তো ইমারজেন্সি ব্যালেন্স এনে কল দিতে! ছেলেটিঃ Continue reading “গল্পটা শুধু মেয়েদের জন্য”

জোকসঃ আম্মু বড় মেয়েদের চুমু দিলে কি হয়?

দুষ্ট ছেলে একদিন
দেখে তার এক
বড়
ভাই একটা মেয়েকে চুমু
দিচ্ছে|
তার
খুব
জানতে ইচ্ছা করে চুমু
দিলে কি হয়?
বাসায় এসে তাই
সে তার
মাকে বলল,
“আম্মু ! বড় মেয়েদের
চুমু
দিলে কি হয়?
“ আম্মু তো খুব কড়া,
তিনি চান
ছেলে ভালো থাকুক|
এইসব পাপ
যাতে না করে তাই ভয়
দেখানোর
জন্য দুষ্ট
ছেলেকে বললেন, “চুমু
দেয়ার
পর ছেলেগুলার শরীর
আস্তে আস্তে পাথর
হইয়া যায়,
পরে মাটিতে পরে মরে যায়|”
দুষ্ট
ছেলের মনে চুমুর
ব্যাপারে একটা চিরস্স্থায়ী ঢুকে যায়|
সে আস্তে আস্তে বড়
হয়, যুবক
হলে একদিন এক দুষ্ট
মেয়ের
সাথে কথা হয়, কথায়
কথায়
সম্পর্ক হয়|
মেয়েটা একদিন
তাকে চুমু
দিতে চায়। কিন্তু
সে তাকে মানা করে দিয়ে বল
“আমার
আম্মু বলছে বড়
মেয়েদের
চুমু
দিলে আমি পাথর
হয়ে মারা যাব|”
কিন্তু মেয়েটা,
“বোকা!!!
আসো কিচ্ছু হবেনা,”
বলেই
এগিয়ে গিয়ে চকাস
করে একটা রামচুমু
দিল| চুমু শেষ
করতেই
না করতেই
দুষ্ট ছেলে বলে,”হায়
রে হায়|
আম্মা ঠিকই
বলছিল”
বলে মাটিতে শুয়ে গড়াগড়ি দেওয়া শুরু করলো,
মেয়েটা বলে,
“কি হইছে ???”

দুষ্ট ছেলে,” তুই কেন
আমারে চুমাইলি !
আমি পাত্থর
হইয়া মইরা যামু। তুই
চুমা দিতে না দিতেই
আমার
শরীরের
একটা অংশ শক্ত
হওয়া শুরু
করছে…!!
**জন সিনা একবার
এক
দোকানে গেছে রেসলিং

জয়ী হওয়া ঘড়ি ঠিক
করার
জন্য।।।
.
জন সিনা :
আমি আমার
এই ঘড়িটা ঠিক
করতে চাই।
কত টাকা লাগবে???
.
দোকানদার :
আপনি যা দিয়ে কিনেছেন
তার
অর্ধেক
দিলেই চলবে।।।
.
জন সিনা :
আমি ঘড়িটা ৩২
টা ঘুসি মেরে পেয়েছি।
তো কয়টা দিতে হবে???
— দোকানদার বেহুশ!!

**শিক্ষক : বলতো আম উপরের দিকে না পরে নিচের দিকে পরে কেন?
বল্টু : স্যার, উপরে খাওয়ার মানুষ নেই তাই।
শিক্ষক (একটু রেগে) : এই শিখছিস ? আচ্ছা বল, লোহার তৈরি জাহাজ পানিতে ভাসে, কিন্তু লোহার টুকরা পানিতে ডুবে যায় কেন?
বল্টু : লোহার তৈরি জাহাজ ভেসে থাকে কারন এর চালক আছে, কিন্তু লোহার টুকরার চালক নেই তাই এটা ডুবে যায়।
শিক্ষক : তোর মাথায় ডাস্টার মারব হারামি।
আচ্ছা এবার বাংলা ২য় পত্র বের করে ক্রিকেট রচনাটা লেখ। সময়:-৩০মিনিট।
কিছক্ষন পর বল্টু খাতা জমা দিল….. স্যার তো অবাক এত তাড়াতাড়ি বল্টুর রচনা লেখা হয়ে গেল।
শিক্ষক কৌতূহল সহকারে পড়ল।
বল্টু লিখেছে…… “খেলা শুরু এবং আকাশে মেঘলা মেঘলা ভাব। বৃষ্টির কারনে ম্যাচ পরিত্যক্ত।
শিক্ষক বেহুস

জোকসঃ নারে, ঐ মেয়েদের দেখা মাত্রই একটা জায়গায় জমে শক্ত হতে শুরু করছিল

দুইটা খোকা একদিন খেলতে খেলতে সাগর পাড়ে চলে এল। সেখানে তারা দেখতে পেল স্বল্পবসনা মেয়েরা রৌদ্রস্নানরত। হঠাত একটা খোকা পিছন দিকে দৌড়ে পালাতে লাগল। অন্য খোকাটি বুঝতে পারল না তার কি হয়েছে এবং কেন এভাবে দৌড়ে পালাচ্ছে। সে তার পিছন পিছন আরো জোরে দৌড়ে এসে তাকে ধরে ফেলল।
– কিরে, এভাবে দৌড়ে পালাচ্ছিস কেন?
– মা বলেছিল যখন আমি নগ্ন মেয়ে দেখব, তখন জমে পাথর হয়ে যাব।
– আরে তোর মা তোকে ভয় দেখিয়েছে!!
:
:
:
:
– নারে, ঐ মেয়েদের দেখা মাত্রই একটা জায়গায় জমে শক্ত হতে শুরু করছিল…

না স্যার , এইটা ষাঁড়েরই করা লাগে ।

দেরী করে স্কুলে এসে
শিক্ষক : কিরে এত
দেরী হল কেন? স্কুল
কয়টায় শুরু হয়?
বল্টু: স্যার ,
আমি তো আগেই বাইর
হইছিলাম ,
আব্বা বলল
গরুটারে চেয়ারম্যান
বাড়ির ষাঁড়টার
কাছে দিয়া আসতে ,তা
দেরী হইয়া গেল।
শিক্ষক: তো এই
কাজটা তোমার
বাবা করতে পারল
না?:-@
.
. .
.
.
.
.
বল্টু: না স্যার ,
এইটা ষাঁড়েরই
করা লাগে ।
লাইক হবে ?

চরম ইন্টারভিউঃ না পড়লে মিস

প্রশ্নকর্তাঃ একটা প্লেনে ৫০টা ইট আছে, একটা ইট
ফেলে দিলে থাকে কয়টা?

প্রার্থীঃ এটা তো সোজা। ৪৯টা।

প্রশ্নকর্তাঃ আচ্ছা, একটা ফ্রিজে হাতি রাখার তিনটা স্টেপ কী কী?

প্রার্থীঃ ফ্রিজটা খুলুন, হাতিটা ঢোকান, এরপর ফ্রিজের দরজা বন্ধ
করে দিন।

প্রশ্নকর্তাঃ একটা ফ্রিজে একটা হরিণ রাখার চারটা স্টেপ কী কী?

প্রার্থীঃ ফ্রিজটা খুলুন, হাতিটা বের করুন, হরিণটা ঢোকান, এরপর
ফ্রিজের দরজা বন্ধ করে দিন।

প্রশ্নকর্তাঃ বনে সিংহের আজকে জন্মদিন। সবাই এসেছে শুধু একজন
ছাড়া। কে আসেনি এবং কেন?

প্রার্থীঃ হরিণ আসেনি। কারণ সে ফ্রিজে।

প্রশ্নকর্তাঃ এক বৃদ্ধা কুমির ভর্তি একটা খাল পার
হলো কোনো ক্ষতি ছাড়াই, কীভাবে?

প্রার্থীঃ কারণ সব কুমির সিংহের জন্মদিনে গিয়েছে।

প্রশ্নকর্তাঃ শেষ প্রশ্ন, তার পরও বৃদ্ধা মারা গেলেন, কেন?

প্রার্থীঃ উমম…আমার মনে হয়, তিনি খালের
পানিতে ডুবে গিয়েছিলেন?

প্রশ্নকর্তাঃ না, প্লেন থেকে যে ইটটা পড়ে গিয়েছিল, সেটা তার
মাথায় পড়েছিল, আপনি এখন আসতে পারেন…।